1. sergiyas@kpoijoihhhh.online : - :
  2. abdul484501@gmail.com : abdul :
  3. masudbsc2018@gmail.com : admin : Masud Rana
  4. aloha@sayang.art : amanaja :
  5. nopijek793@gosarlar.com : AndreaBlount :
  6. blackdevil@tmpeml.com : blackdevil :
  7. bocek90838@laymro.com : blackmamba77 :
  8. dajalkao@proton.me : dajalkaoo :
  9. eloasu@teml.net : eloasu :
  10. fekifiy583@usoplay.com : fekifiy583 :
  11. indriseptia685@gmail.com : indriseptia :
  12. izaljkttm@gmail.com : izaljkttm :
  13. kamalsaepul84@gmail.com : kamalsaepul84@gmail.com :
  14. auliaaul@skiff.com : kutubuku :
  15. mainstream2201@tmails.net : mainstream2201 :
  16. vowop57133@laymro.com : MichaelCasper :
  17. gegivo3021@astegol.com : OlgaKeys :
  18. pehaxis825@tanlanav.com : pehaxis825 :
  19. roysuryo10@email-temp.com : roysuryo10 :
  20. hifiye5034@bustayes.com : singkek :
  21. twothekno@teml.net : twothekno :
  22. kleplomizujobq@web.de : virgie7243 :
  23. wangsite@smartedirectmail.net : wangsite :
  24. worina6533@usoplay.com : worina6533 :
  25. yeremioloke@outlook.com : yeremioloke :
উল্লাপাড়ায় ঔষধ তৈরির কারখানা হামিম ইউনানী ল্যাবরেটারিজের ৮ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে মামলা।
শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৫:৩৬ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষঃ
কমলগঞ্জে ঐতিহ্যবাহী পিঠা-পুলির উৎসব। উল্লাপাড়ায় বন্যাকান্দি আলিম মাদ্রাসার বার্ষিক ক্রিড়া প্রতিযোগিতা ও পুরুষ্কার বিতরন। ফতুল্লায় দানিয়াল হত্যা মামলার এজাহার ভুক্ত আসামি অনিক প্রধান গ্রেপ্তার। নৈশ কোচের ধাক্কায় ভ্যান চালক আনারুলের পা বিচ্ছিন্ন। সরিষাবাড়িতে বিধবার ঘরে পরকীয়া করতে গিয়ে জনতার হাতে যুবক আটক। অস্থায়ী কলা গাছের তৈরি শহীদ মিনারে বালিয়াডাঙ্গীর চৌরঙ্গী স্কুল শিক্ষার্থীদের শ্রদ্ধা নিবেদন। রাণীশংকৈলে অধিকাংশ সরকারি বেসরকারি অফিসে উত্তোলন হয়নি জাতীয় পতাকা। সানন্দবাড়ীতে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন। রামপালে দুইদিন ব্যাপী বই মেলার উদ্বোধন করলেন এমপি হাবিবুন নাহার। ডিমলায় শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন।

উল্লাপাড়ায় ঔষধ তৈরির কারখানা হামিম ইউনানী ল্যাবরেটারিজের ৮ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে মামলা।

উল্লাপাড়া (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি
  • সময় সোমবার, ৭ জুন, ২০২১
  • ৭০২ বার দেখেছেন

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় একটি বেসরকারি ঔষধ কোম্পানি হামিম ইউনানী ল্যাবরেটরিজ লিমিটেডের বিরুদ্ধে জীবন বিধ্বংসী হারবাল ঔষধ তৈরি ও পরীক্ষা ছাড়াই মানব দেহে প্রয়োগের অপরাধে উল্লাপাড়া মডেল থানায় বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

শনিবার সন্ধ্যায় নীলা আক্তার নামের এক মহিলা বাদী হয়ে ৮ জন কর্মকর্তাকে আসামী করে এ মামলা দায়ের করেন।

মামলার অভিযোগ সুত্রে জানা গেছে, উল্লাপাড়া পৌরসভায় অবস্থিত হামিম ইউনানী ল্যাবরেটরিজ লিমিটেড কোম্পানিতে ওয়ার্কার পদে চাকুরি করে আসছিল নীলা। কোম্পানির মালিক ডায়াবেটিক রোগের জন্য নতুন উৎপাদিত ডাইজিক কেয়ার নামে একটি ঔষধ উৎপাদন করতে চলেছেন।

ডাইজিক কেয়ার নামের উৎপাদিত ঔষধের (ক্যাপসুল) কিছু স্যাম্পল কোম্পানির প্রতিষ্ঠাতা ম্যানেজিং ডিরেক্টরের নির্দেশে হেকিম আলামিন ওয়ার্কার নীলাকে প্রদান করেন এবং বিভিন্ন ডায়াবেটিক রোগিদের মধ্যে বিতরণ ও প্রয়োগ করে ফলাফল জানানোর নির্দেশ দেন।

তিনি সরল মনে উৎপাদিত ঔষধ গ্রহন করে তার বাড়ী কয়ড়া নিয়ে যান। নীলার স্বামী নাজমুল হুদা ও শ্বশুর আসাব আলী তারা উভয়ে ডায়াবেটিক রোগী হওয়ায় তাদের দুথজনকেই উক্ত ঔষধ সেবন করান। সেবনের কিছু সময় পড়েই তার স্বামী ও শ্বশুর উভয়েই গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন। স্থানীয় হাসপাতালে নেওয়ার পথে তারা জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। পরে চিকিৎসকের পরামর্শে স্বামী ও শ্বশুরকে নিয়ে নীলা বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন।

কর্তব্যরত চিকিৎসকের নিবির পরিচর্চায় ৪৮ ঘন্টা পর উভয়ে জ্ঞান ফিরে পান। পরীক্ষা করে তাদের শরীরে জীবন বিধ্বংসী ডিএম, এইচটিএন, হারবাল পয়জন শনাক্ত করেন চিকিৎসকরা। বর্তমানে অসুস্থ অবস্থায় মানবেতর জীবনযাপন করছেন তারা।এই কোম্পানীর বিরুদ্ধে যৌন উত্তেজক ট্যাবলেট প্রস্তুত করে বাজারে বিপননের মাধ্যমে যুব সমাজকে ধ্বংসের অভিযোগ রয়েছে।

কোম্পানিটি উল্লাপাড়ার পৌর শহরের প্রান কেন্দ্র গ্যাসলাইন হাট সংলগ্ন এলাকায় অবস্থিত। সেক্সরের ঔষধ তৈরির কারখানা করে রাতারাতি কোটি প্রতি হয়ে গেছে। কোম্পানির মালিক স্থানীয় প্রভাবশালী ব্যাক্তি, অনেক সাংবাদিককে ও উপর মহল ম্যানেস করে দীর্ঘ দিন এই অবৈধ ঔষধ তৈরি করে ঢাকা,নারায়ণগঞ্জ, কুষ্টিয়া, খুলনা চিটাগং সহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় শোরুম করে বিক্রয় করে আসছে।

গেল বছর অভিযোগের পর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আরিফুজ্জামান মোবাইল কোটের মাধ্যমে কারখানাটি ঘেরাও করলে তাকে বিভিন্ন অজুহাতে ঢুকতে দেওয়া হয়নি। পরবর্তীতে জেলা আইনশৃঙ্খলা মিটিংয়ে এটি নিয়ে আলোচনা হয়। এই কার খানায় কাউকে ঢুকতে দেওয়া হয় না। অদৃশ্য শক্তির কারনে কোম্পানি’র মালিক বার বার পার পেয়ে য়ায়।

জানা গেছে এই কোম্পানি থেকে অনেকই মাসহারা পান।এই দুরদর্শিতার কারনে আবার শুরু করে দিয়েছে হামিম ইউনানী ল্যাবরেটরিজ লিমিটেডের নতুন উৎপাদিত ডাইজিক কেয়ার নামের ক্যাপসুল।

যা খেয়ে অসুস্থ হয়ে পরছে অনেকে। এই ট্যাবলেটে শরীরে জীবন বিধ্বংসী পয়জন শনাক্ত হওয়ার অপরাধে বাদী নীলা আক্তার সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের ৮ জন কর্মকর্তাকে আসামী করে ১৯৭৪ সালের বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা করেছেন উল্লাপাড়া মডেল থানায়। অভিযুক্ত আসামীরা হলেন- হামিম ইউনানী ল্যাবরেটরিজ লিঃ ঐষধ প্রস্ততকারী কোম্পানির ম্যানেজিং ডিরেক্টর আব্দুল গণি মন্ডল (৫৮), হেকিম মোঃ আলামিন (৪০), ম্যানেজার মোঃ আজিম (৩৫), পরীক্ষক মোঃ মাসুম (৩৬), মেশিন অপারেটর শিবলী মন্ডল (৩৭), সহকারি ম্যানেজিং ডিরেক্টর জাহাঙ্গীর (৪৫), মোঃ সুমন মন্ডল (৪০), কোম্পানির তত্ত্বাবধায়ক মোছাঃ রোজিনা বেগম।

উল্লাপাড়া মডেল থানার উপ-পরিদর্শক ও মামলা তদন্তকারি কর্মকর্তা গাজীউল হক জানান, ঔষধ কোম্পানিটির বিরুদ্ধে মামলা হওয়ায় বর্তমানে কোম্পানিটি বন্ধ রেখে অভিযুক্তরা পলাতক রয়েছে। পুলিশ তাদের গ্রেফতারের চেষ্টা করছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো খবর
© All rights reserved © 2020
Web Development BY Freelancer Basar